নভেম্বর ২৪, ২০২০

‘র’ এ ছেয়ে গেছে পুরো বাংলাদেশ

১ min read

নতুন আলো নিউজ ডেস্ক  :মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ও গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন -আজ দেশ ও দেশের মানুষ খুবই বিপদের সম্মুখীন। একদিকে ভারতের আধিপত্য, অন্যদিকে দেশের ভেতরে চলছে বিচারবর্হিভূতভাবে মানুষ হত্যার দুর্যোগ। প্রতিদিনই মানুষ বিচারবর্হিভূতভাবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে হত্যাকাণ্ডের শিকার হচ্ছেন। এটা একটি স্বাধীন দেশের জন্য ভয়াবহ পরিস্থিতি।

তিনি বলেন, এ অবস্থা থেকে পরিত্রাণ পেলে জনগণের মুক্তি আসবে না। এ জন্য সম্মিলিত প্রচেষ্টা প্রয়োজন।

 

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় চাঁদপুর প্রেসক্লাব মিলনায়তনে স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে চাঁদপুর জেলা নাগরিক ঐক্য আয়োজিত এক সভা ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

জাফরুল্লাহ চৌধুরী আরো বলেন, ‘র’ দিয়ে পুরো বাংলাদেশ ছেয়ে গেছে। সর্বত্রই ভারত আধিপত্য বিস্তার করেছে যা প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের মাধ্যমেই প্রকাশ পেয়েছে। ফলে সম্মিলিতভাবে ভারতের এই আধিপত্যবাদ রুখতে না পারলে এদেশের মানুষের মুক্তি আসবে না।

ভারতের ‘র’ প্রসঙ্গ টেনে মুক্তিযুদ্ধের এই সংগঠক বলেন, দেশে সুষ্ঠু রাজনীতি ফিরে আনতে হলে সম্মিলিত একটা জাতীয় ঐক্য গঠন করে এই আধিপত্য থেকে দেশকে মুক্ত করতে হবে। তিনি বলেন, সম্মিলিত জাতীয় ঐক্য তথা রাজনৈতিক মোর্চা গঠন ছাড়া কোনোভাবেই ক্ষমতার পট পরিবর্তন সম্ভব নয়।

অতীতে যেমন ৬ দফা ও ১১ দফার ভিত্তিতে সম্মিলত ঐক্য গঠনের মাধ্যমে ক্ষমতার পট পরিবর্তন হয়েছিল, তেমনি বর্তমানেও সেই প্রেক্ষাপট তৈরি হয়েছে। তাই প্রেক্ষাপট বুঝে ব্যবস্থা নিতে হবে।

 

অনুষ্ঠানে নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন, নির্বাচনের নামে আওয়ামী সরকার যে ভণ্ডামি শুরু করেছে, তার বিরুদ্ধে জনগণকে সোচ্চার হতে হবে। এ জন্য দেশে একটি প্রগতিশীল নতুন রাজনৈতিক শক্তি দরকার। জনগণই এই শক্তি।

মান্না বলেন, ‘কোনো মামলা, ষড়যন্ত্র ও হুমকি আমাদের মাথা নত করতে পারবে না। আগেও পারেনি, এখনো পারবে না। জনগণের ন্যায়সাপেক্ষ দাবির আন্দোলনে রাজপথে আছি এবং থাকব। আগামী নির্বাচনে সবার অংশগ্রহণের ক্ষেত্র নিশ্চিত করলে সেই নির্বাচনে অংশ নেব। আমরা এই ক্ষমতাসীনদের বিরুদ্ধে লড়তে চাই।’

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক বলেন, ‘খালেদা জিয়ার আমলে অর্থ লুটপাটের রাজনীতি শুরু হয়েছে। বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকারও তার চেয়ে বেশি অর্থ লুটপাট করছে। ১০ হাজার কোটি টাকার পদ্মা সেতু আজকে ৫০ হাজার কোটি টাকায় করার নামে যে উন্নয়ন চলছে, তা লুটপাটের রাজনীতি ছাড়া কিছু নয়। আমি মনে করি, দুটি দলের কারও হাতেই দেশ ও দেশের মানুষ নিরাপদ নয়। এ সরকার দেশের উন্নয়ন নিয়ে মিথ্যাচার করছে এবং কয়েক দিনের ব্যাংকের চিত্র দেখলেই তা বোঝা যায়।’

 

সভায় বাসদের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক খালেকুজ্জামান বলেন, আজ দুর্বৃত্তের হাতে রাজনীতি চলে এসেছে। এ থেকে ও দেশের মানুষকে মুক্ত করতে হবে।

নাগরিক ঐক্য চাঁদপুর জেলার আহ্বায়ক ফজলুল হক সরকারের সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য দেন জেএসডির সাধারণ সম্পাদক আবদুল মালেক রতন, নাগরিক ঐক্যের সমন্বয়ক শহীদুল্লাহ কায়সার, গণফোরামের জেলা সভাপতি সেলিম আকবর ও বাসদ নেতা শাহজাহান তালুকদার প্রমুখ।

নিউজ নিজে পড়ুন এবং শেয়ার করে অন্য কে পড়ার সুযোগ করে দিন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Copyright © notunalonews24.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.