মঙ্গল. সেপ্টে ২২, ২০২০

চরনারচর ইউনিয়নে অসহায় পরিবারের মধ্যে ১৫শত টাকা করে নগদ অর্থ দিয়েছে ব্র্যাক।  

এম রেজা টুনু সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:করোনা ভাইরাসের মহামারীর ফলে সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার চরনারচর ইউনিয়নের ৩৮টি গ্রামের ঘরবন্দি ৪০৫টি অসহায়,গরীব দিনমুজুর ও কেটে খাওয়া মানুষজনের প্রত্যেককে নগদ ১৫শত টাকা করে অর্থ সহায়তা করেছেন উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাক।
বৃহস্পতিবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত ইউনিয়নের প্রতিটি গ্রামের বাড়ি বাড়ি গিয়ে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এই নগদ অর্থ প্রদান করেন চরনারচর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রতন কুমার দাস তালুকদার ও উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাকের সমন্বয়কারী মোঃ ফখরুল আলম। এ সময় উপস্থিত ছিলেন কর্মসূচী সংগঠক মিটন মিয়া ও কল্যাণ মল্লিক প্রমুখ।

চরনারচর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রতন কুমার দাস তালুকদার বলেছেন,এই করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে এখনো কোন প্রতিসেধক ঔষধ বিশ্বে এখনো তৈরী করা সম্ভব হয়নি। তারপরেও বিশ্বের বিষেজ্ঞরা মেডিসিন তৈরীর প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখলে ও আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহবানে সাড়া দিয়ে সবাই যার যার ঘরে অবস্থান করছেন। এজন্য সবাইকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে চলাই হলো এই মহামারী থেকে পরিত্রানের একমাত্র উপায়। মনে রাখতে হবে নিজে নিরাপদ থাকলে পরিবারের প্রতিটি সদস্য নিরাপদে থাকবে ফলে দেশ এই মহামারীর থাবা থেকে রেহাই পাবে। তিনি আরো বলেন আজ যারা কর্মহীন হয়ে ঘরে বসে আছেন সবার জন্য খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিতে সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে প্রতিটি মানুষের ঘরে ঘরে প্রতিনিয়ত খাদ্যসামগ্রী পৌছে যাচ্ছে। এজন্য সবাইকে সচেতন হওয়ার আহবান জানান।

উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাকের সমন্বয়কারী মোঃ ফখরুল আলম বলেছেন এই করোনা ভাইরাসে দেশের প্রতিটি অঞ্চলে অসহায় ও কর্মহীন মানুষদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে ব্র্যাকের পক্ষ থেকে নগদ অর্থ সহায়তা দেয়া হ”্ছ।ে এই র্দূযোগকালীন সময় ব্র্যাক একেবারেই অসহায় মানুষজনের পাশে আছে এবং পাশে থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তিনি।

Copyright © notunalonews24.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.