মে ৯, ২০২১

সোনারগাঁয়ে হেফাজতের ভাঙচুরের মামলায় জাপা নেতা গ্রেপ্তার

ডেস্ক রিপোর্ট::নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে একটি রিসোর্টে হেফাজতে ইসলামের সমর্থকদের ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের মামলায় উপজেলা জাতীয় পার্টির (জাপা) সভাপতি ও শম্ভুপুরা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান আবদুর রউফকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। আজ সোমবার দুপুরে ইউপি কার্যালয় থেকে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়।

সোনারগাঁ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ হাফিজুর রহমান বলেন, রউফকে দুটি মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। সোনারগাঁয়ের রিসোর্টে হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মামুনুলকে অবরুদ্ধ করার পর হেফাজতের সমর্থকদের হামলা, ভাঙচুর ও সহিংসতার ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে মামলা করে। অন্যদিকে, আওয়ামী লীগের কার্যালয় ভাঙচুরের ঘটনায় অপর মামলাটি করেন উপজেলা যুবলীগের প্রচার সম্পাদক নাসির উদ্দীন।

আবদুর রউফ উপজেলা বিএনপির সাবেক সহসভাপতি ছিলেন। বর্তমানে তিনি উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি। আজ বেলা একটার দিকে শম্ভুপুরা ইউপি কার্যালয় থেকে তাঁকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। সোনারগাঁ থানার পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তারের পর সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে রউফকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। রউফকে গ্রেপ্তার অভিযানের সময় উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (খ অঞ্চল) শেখ বিল্লাল হোসেন।

প্রসঙ্গত, ৩ এপ্রিল সোনারগাঁয়ের রয়েল রিসোর্টে হেফাজতের যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হক ও তাঁর সঙ্গে থাকা এক নারীকে অবরুদ্ধ করে রাখেন স্থানীয় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের কর্মীরা। এ ঘটনায় মামুনুলের সমর্থকেরা রয়েল রিসোর্ট, স্থানীয় আওয়ামী লীগের কার্যালয়, নেতাদের ঘরবাড়ি ভাঙচুর ও মহাসড়কে অগ্নিসংযোগ করেন। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে দুটি ও ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিরা বাদী হয়ে পাঁচটি মামলা করেন। এসব মামলায় ৪৪৬ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা ১ হাজার ৮০০ জনকে আসামি করা হয়। এ পর্যন্ত সাতটি মামলায় ৬৫ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

 

Copyright © notunalonews24.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.