নভেম্বর ২৬, ২০২০

এই সরকারের মত এমন নির্যাতন নিপীড়ন স্বৈরাচার এরশাদও করেনি : মাহমুদুর রহমান মান্না

১ min read

নতুন আলো অনলাইন ডেস্ক:বর্তমান সরকারের নিপীড়নমূলক আচরণের সমালোচনা করে নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন, ‘এই সরকারের মত এমন নির্যাতন নিপীড়ন স্বৈরাচার এরশাদও করেনি।’

তিনি বলেন, ‘মানুষ আজ আন্দোলন করতে গেলেই সরকার নির্যাতন করছে। অন্যায়ভাবে মানুষের নামে মামলা দিচ্ছি, হয়রানি করছে। দেশকে পুলিশি রাষ্ট্রে পরিণত করা হয়েছে।’

সোমবার (৮ অক্টোবর) জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে সোনার বাংলা পার্টি ও জনদলের যুক্তফ্রন্টে যোগদান উপলক্ষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য তিনি এসব কথা বলেন।

সারা দেশে আজ সরকার বিরুদ্ধে ঐক্য গড়ে উঠেছে দাবি করে মান্না বলেন, ‘সারা দেশে আজ সরকারবিরোধী ঐক্য গড়ে উঠেছে, এই ঐক্য ভোটের ঐক্য। মানুষ আমাদেরকে বলে আমরা কি ভোট দিতে পারবো? ভোটের নামে দেশে আর ছলচাতুরি করতে দেয়া হবে না, এসব ছলচাতুরি বন্ধ করতে হবে। আমরা ঐক্যের মাধ্যমে দেশে কার্যকর গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করতে চাই। গণতন্ত্র মানে শুধু স্বাধীনভাবে কথা বলার অধিকার নয়, গণতন্ত্র মানে আপনার স্বাধীন জীবনযাপনের অধিকার। অথচ আজ দেশে স্বাধীনতার ৪৭ বছরেও পূর্ণ গণতন্ত্র আসেনি।’

নির্বাচন কমিশনের সমালোচনায় মান্না বলেন, ‘পত্রিকায় দেখলাম প্রধান নির্বাচন কমিশন বলেছেন ‘ডিসেম্বরে নির্বাচন’ তিনি এই রকম কথা বলেনি। আগে কি বলেছেন তিনি ভুলে গেছেন। তিনি মাঝে একবার বলেছিলেন, সুষ্ঠু নির্বাচন করা আমাদের পক্ষে সম্ভব না। গত কয়েক বছর ধরে সরকার যে হারে অবৈধ কীর্তি-কলাপ চালাচ্ছে, প্রকারান্তরে সরকারকে নির্বাচন কমিশন সেসব বিষয়ে সহযোগিতা করছে তাতে করে দে‌শে সুষ্ঠু নির্বাচন কীভা‌বে হ‌বে?’

বাংলাদেশে কেউ একাধারে এতদিন ক্ষমতায় থাকতে পারিনি উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘আমরা যুক্তফ্রন্টের পক্ষ থেকে গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের জন্য ৫ দফা দাবি দিয়েছি। পরে জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার পক্ষ থেকে সেই দাবি দেয়া হয়েছে। এর আগে বিএনপির পক্ষ থেকে একই দাবি দেয়া হয়েছিল। সাধারণ মানুষ-সাংবাদিকরা আমাদের কাছে জিজ্ঞাসা করে এই সরকার তো দাবি মানবে না, শেখ হাসিনা ক্ষমতা ছাড়বে না, তাহলে আপনারা কি করবেন? আমি বলি- ক্ষমতায় কেউ চিরস্থায়ী থাকে না। বাংলাদেশে কেউ একাধারে এতদিন ক্ষমতায় থাকতে পারিনি। পাকিস্তানের আইয়ুব খান ও উন্নয়‌নের কথা ব‌লে‌ ১০ বছর ক্ষমতায় ছিলেন, কিন্তু ক্ষমতার একদশক পালনের কিছুদিন পরেই তার পতন ঘটে। এখন আমাদের সরকার একইভাবে সারা দেশে উন্নয়নের মেলা করছে। তারাও ক্ষমতায় থাকতে পারবে না। গতকাল আপনারা দেখেছেন, যুক্তফ্রন্ট, জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া ও বিএনপি ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের ঘোষণা দিয়েছেন।’
সোনার বাংলা পার্টির সভাপতি শেখ আব্দুর নূর এর সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন সমাজতান্ত্রিক দলের সাধারণ সম্পাদক আবদুল মালেক রতন, সাংগঠনিক সম্পাদক মোশাররফ হোসেন ও বাংলাদেশ জনদলের চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান জয় চৌধুরী প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Copyright © notunalonews24.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.