সোম. সেপ্টে ২১, ২০২০

দেশের স্বার্থবিরোধী কোনো চুক্তি জনগণ মেনে নেবে না

১ min read

প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর প্রসঙ্গে বিএনপির মহাসচিব মীর্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সমস্যা পানি সমস্যা। আর এই পানি সমস্যা সমাধানের কোন লক্ষণ আমরা দেখতে পারছি না। পানি নিয়ে যে চুক্তির কথা আমরা শুনতে পারছি সে চুক্তি বাস্তবায়ন হলে তা আমাদের দেশের জন্য স্বাধীনতার জন্য এবং  সার্বভৌমত্বের জন্য হবে হুমকি স্বরুপ। আমরা সুষ্পষ্ট  করে বলেছি, এদেশের মানুষ কখনোই স্বার্থের বিরোধী ও স্বাধীনতা বিরোধী কোনো চুক্তি মেনে নেবে না। আজ দুপুরে মানিকগঞ্জের ঘিওর উপজেলার পাচুরিয়া গ্রামে শায়িত বিএনপির প্রয়াত মহাসচিব খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনে মুত্যুবার্ষিকী অনুষ্ঠানে যোগদান শেষে সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল।
মির্জা ফখরুল আরও বলেন, ১৯৭১ সালে যেমন স্বাধীনতা যুদ্ধ করেছিল, পরবর্তীকালে বিভিন্ন ঘাত-প্রতিঘাত সহ্য করে স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষা করার জন্য বাংলাদেশ মানুষ যেভাবে  কাজ করেছিল ঠিক একইভাবে সব রকম ষড়যন্ত্রকে প্রতিহত করবে।
তিনি বলেন, যে কোন গনতান্ত্রিক দেশ গুলো কোন চুক্তি করার আগে তারা বিরোধী দল গুলোর সাথে আলাপ আলোচনা করে বাইরের দেশের সাথে চুক্তি করতে যায়। দুর্ভাগ্যবশত, আমাদের দেশের এই সরকার কোনো গণতান্ত্রিক সরকার নয়। তারা এখন পর্যন্ত যা করে আসছে, গায়ের জোরে একটার পর একটা করে আসছে এবং সেটা জনগণের পক্ষে যাচ্ছে না। আমরা বারবার বলে আসছি আলোচনার কথা, সংলাপের কথা, বিশেষ করে চুক্তির আগে জনগণের সঙ্গে দলগুলোর সঙ্গে কথা বলা জরুরী বলে মনে করি।
মির্জা ফখরুল যোহর নামাজ শেষে নেতাকর্মী সঙ্গে নিয়ে বিএনপির প্রয়াত মহাসচিব খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনের কবরে দলের পক্ষ থেকে ফুলেল শ্রদ্ধা জানান এবং দোয়ায় অংশ নেন। এসময়  তার সঙ্গে কেন্দ্রীয় ও জেলা নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Copyright © notunalonews24.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.