এপ্রিল ১৬, ২০২১

ছবিতে মায়ের সাথে ছেলেটি সুস্থ হয়ে বিদ্যালয়ে ফিরতে চায়!

১ min read

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জ সরকারী জুবিলী উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর ছাত্র জাহিদ। দরিদ্র পরিবারে জন্মগ্রহণ করা ছেলেটি ২০১৬ সালের দিকে হঠাৎই প্যারালাইজড হয়ে যায়!! দারিদ্র্যের কষাঘাতে জর্জরিত ছেলেটির জন্য অন্ন বস্ত্রের যোগাড় করাই যেখানে কঠিন, সেখানে তার চিকিৎসাটা ব্যয়ভার বহন করাটা পরিবারের জন্য দু:সাধ্যই বটে। তবুও বিভিন্ন মাধ্যমে প্রয়োজনের তুলনায় সামান্য কিছু অর্থের সংস্থান করে একবার ভারতে গিয়ে চিকিৎসা নিয়েছিল এবং শরীরের অাশানুরূপ উন্নতিও ঘটেছিল। সেখানকার চিকিৎসকেরা ছয় মাস পর পর ভারতে গিয়ে চিকিৎসা নেওয়ার জন্য পরামর্শ দিয়েছিলেন। কিন্তু দৈনন্দিন অাহার জোগানোটা যেখানে সময়ে অসম্ভব হয়ে দাড়ায় সেখানে তার ২০-২৫ লক্ষ টাকার চিকিৎসা ব্যয়ভার বহন করাটা পরিবারের জন্য শুধু অসহায় চাহনিতেই সীমাবদ্ধ!! মায়ের স্বপ্ন ছিল ছেলেটি পড়াশোনা শেষ করে চাকুরী নিয়ে পরিবারের হাল ধরবে, পরিবারে দুমুঠো অাহারের নিশ্চয়তা জুটবে। কিন্তু সে অাশাও অাজ ফিকে!! টাকার অভাবে চিকিৎসাটাও করতে না পেরে মেধাবী ছেলেটির ধুকে ধুকে মরতে দেখা ছাড়া হয়তো মায়ের অার করার কিছুই নেই! একজন মায়ের জন্য এর চেয়ে বড় কষ্টের অার কি হতে পারে। শুধু সবাই মিলে অার্থিক সাহায্য করলেই সে অাবারো সুস্থ হয়ে প্রিয় বিদ্যালয়ের অাঙ্গিনায় সহপাঠীদের সাথে উচ্ছ্বলতায় মেতে উঠবে। বাঁচবে জাহিদ, বাঁচবে একজন মায়ের স্বপ্ন!

জাহিদ কে বাঁচাতে বর্তমান ও সাবেক কিছু সংখ্যক জুবিলীয়ানরা এগিয়ে এসেছে এবং তার জন্য অর্থ সংগ্রহে কাজ করছে।

তাই অাসুন সবাই মিলে তাকে সহায়তা করি, সুস্থ করে তুলি জাহিদকে, টিকিয়ে রাখি মায়ের স্বপ্নকে।

সাহায্য পাঠানোর ঠিকানা ও হিসাব নম্বর :

খুশবুল বেগম
মুদারাবা সঞ্চয়ী হিসাব,
ইসলামী ব্যাংক, সুনামগঞ্জ শাখা।
20502930201390905

বিকাশ : 01615825060 (পারসোনাল)

বিশেষ প্রয়োজনে : মাকসুদুর রহমান দিপু (01795107434)

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Copyright © notunalonews24.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.